আজ ১২এপ্রিল বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা-১২টা পর্যন্ত ‘ধর্ষণের বিরুদ্ধে হোক প্রতিরোধ’এই শ্লোগান নিয়ে দেশের বিভিন্ন জায়গায় মৌন কর্মসূচির অংশ হিসেবে জনউদ্যোগ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। বিভিন্ন সামাজিক,সাংস্কৃতিক ও অপরাপর সংগঠন এ প্রতিবাদী এ কর্মসূচিতে যোগ দেন বলে এক বিজ্ঞপ্তিতে জানা যায়।
ঢাকায় জনউদ্যোগ জাতীয় কমিটির আহ্বায়ক ডাকসুর সাবেক সাধারণ সম্পাদক ডা. মুশতাক হোসেন, লুনা নুর, জ্যোতি চট্টোপাধ্যায়, সুবোধ এম বাস্কে, অলি কুজুরসহ নেতা-কর্মীরা মহাখালিতে অংশ নেন। আইইডির নির্বাহী পরিচালক নুমান আহম্মেদ খান, মো. হামিদুজ্জামান, জমসম উদ্দিন মল্লিকসহ জনউদ্যোগ সদস্যরা শ্যামলী সিনেমা হলের সামনে; জনউদ্যোগ সদস্য সচিব তারিক হোসেন, সঞ্চিতা তালুকদারসহ সদস্যরা মিরপুর বাংলা কলেজের সামনের সড়কে; মাহবুবুল হক, অধ্যাপক চন্দন প্রমুখ উত্তরা ১০নং সেক্টর; সাইফূল ইসলামসহ অন্যান্যরা মাণ্ডা, মানিক নগর; হরেন্দ্রনাথ সিংসহ আদিবাসী যুব পরিষদ ও হিউম্যান রাইটস ডিফেন্ডারস ফোরামের নেতৃবৃন্দ ও জনউদ্যোগের সদস্যরা কাওরান বাজার মোড় ও মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থার সামনে; নিরলা মার্ডির নেতৃত্বে লালমাটিয়া মহিলা কলেজের সামনে; ফেরদৌস আহম্মেদ উজ্জলসহ অন্যান্যরা ধানমণ্ডি ২৭ নং রোডের মিনাবাজারের সম্মুখে প্রতিবাদী এ কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করেন।
এ ছাড়াও যশোরে বারান্দীপাড়া, ঢাকা রোড, কাজীপাড়া, উপশহর, কলাবাগান প্রভৃতি মিলিয়ে ৩০ টি পয়েন্টে এ কর্মসূচী পালিত হয়। ময়মনসিংহে আইইডি ময়মনসিংহ কেন্দ্র কার্যালয়ের সামনে, আইনজীবী সমিতি প্রাঙ্গণের সামনে, মুক্তিযোদ্ধা পল্লী আবাসন বলাশপুর, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় রোডের সামনে, র‌্যালীরমোড় ব্রীজ সংলগ্ন সড়ক, আকুয়া জুবিলী কোয়ার্টার সংলগ্ন সড়ক, কৃষ্টপুর প্রাইমারী স্কুল সংলগ্ন সড়কে এ কর্মসূচী পালিত হয়। রাজশাহীতে আলুপট্টি মোড়, নেত্রকোনা ডিসি অফিসের সামনে, গাইবান্ধা ১নং রেলগেট,শেরপুর ও খুলনাতেও এ কর্মসূচী পালিত হয় বলে বিজ্ঞপ্তিতে জানা যায়।