‘আমার সিনেমা, আমার ভাষা’ এই স্লোগানে রাঙামাটিতে আজ থেকে শুরু হচ্ছে তিন দিন ব্যাপী চতুর্থ পার্বত্য সিনেমা উৎসব। ক্ষুদ্র-নৃগোষ্ঠী সাংস্কৃতিক ইন্সটিটিউট অডিটোরিয়ামে এই উৎসব চলবে আগামী ১১ এপ্রিল পর্যন্ত। উৎসবের আয়োজন করেছেন হিজেক ফেলিম।

উৎসবের প্রথমদিন আজ মারমা ভাষা, চাকমা ভাষা ও ত্রিপুরা ভাষার স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ও প্রামান্যচিত্র প্রদর্শিত হবে। বিকেল তিনটা থেকে ছয়টা পর্যন্ত উচিং মারমার ‘সাদাং পোসা’ এবং নান্টু চাকমার প্রামাণ্যচিত্র ‘ক্রাইং ফরেস্ট’ আর সন্ধ্যায় ছয়টা থেকে বিভায়ন চাকমার স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘রিচার্জ’, রাজা দেবাশীষ রায়ের প্রামাণ্যচিত্র ‘দ্য স্পিরিট অফ পাটজকুরিও’ ও সঞ্জীব ত্রিপুরার স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘পাইতাউডি’ সহ মোট পাচঁটি চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে বলে জানা যায়। উৎসবের দ্বিতীয় দিন ১০ এপ্রিল ৩ টা থেকে প্রদর্শিত হবে নোমান রবিনের ‘কমন জেন্ডার’ আর বিকেল ৫:৪৫ থেকে প্রদর্শিত হবে হাবিবুর রহমানের প্রামাণ্যচিত্র ‘আইয়াও’, এডিট দেওয়ানের প্রামাণ্যচিত্র ‘বিঝু ইন সিটি’ ও সুপ্রিয় চাকমা শুভর স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘ম্যনেয় জনম’। ১১ এপ্রিল শেষদিনে চাকমা, তঞ্চগ্যা, জাপানিজ ভাষার মোট পাঁচটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে। সে দিন প্রদর্শিত হবে সুনীল কুমার তঞ্চগ্যার ‘মাইচন্যা কুম’ ও ‘কোয়া ফুল’, আরিফ রহমান বাদলের ‘চিতম ভিচ্চে ইগকুদিন’ তোশিকো হাতার এনিমেশন ‘ফিল এন্ড মু’ এবং ফয়েজ জহিরের ‘আন্দালত পহর’। বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণের মাধ্যমে ৪র্থ পার্বত্য চলচ্চিত্রের পর্দা নামবে।